স্বামীর সামনে প্রতিবন্ধী গৃহবধূকে ধর্ষণ করেন দুলাল হোসেন। ধর্ষিতার স্বামী বাদী হয়ে করা মামলার ভিত্তিতে দুলাল হোসন কে ২০ ডিসেম্বর ২০২০ তারিখে গ্রেফতার করেন পুলিশ।

ধামইরহাট থানার অফিসার ইনচার্জ আবদুল মমিন জানান, প্রায় ১০ বছর পূর্বে প্রতিবন্ধী যুবতীকে (২৫) বিয়ে করে সুখে শান্তিতে ঘর সংসার করছেন চকিলাম গ্রামের আ. সালামের ছেলে আব্দুস সোবহান।

শনিবার রাতে স্ত্রীকে নিয়ে ঘুমাতে গেলে রাত ১০ টার দিকে প্রকৃতির ডাকে বাড়ির বাইরে গেলে একই গ্রামের মতিয়ার রহমানের ছেলে দুলাল হোসেন (৪০) কৌশলে প্রতিবন্ধী গৃহবধুকে খড়ের গাদায় নিয়ে ধর্ষণ করে। দীর্ঘ সময় স্ত্রীকে ঘরে না পেয়ে বাইরে গিয়ে স্বামী আ. সোবাহান স্ত্রীকে ধর্ষক দুলাল হোসেন কর্তৃক ধর্ষণের দৃশ্য দেখে ডাক চিৎকার শুরু করে।

পরে স্থানীয় লোকজন ধর্ষককে আটক করে উত্তম-মধ্যম প্রদান করে স্থানয়ী গ্রাম পুলিশ দ্বারা ধামইরহাট হাসপাতালে প্রেরণ করে। পরে রবিবার রাতে ধর্ষিতার স্বামী আ. সোবহান বাদী হয়ে ধামইরহাট থানায় একটি ধর্ষণ মামলা দায়ের করলে থানা পুলিশ ধর্ষক দুলাল হোসেনকে হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় গ্রেফতার করে এবং সোমবার দুপুরে নওগাঁ আদালতে সোপর্দ করেন।

তথ্যসুত্র